মঙ্গলবার
১৬ই জুলাই, ২০১৯ ইং
১লা শ্রাবণ, ১৪২৬ বঙ্গাব্দ
১২ই জিলক্বদ, ১৪৪০ হিজরী

সাতক্ষীরায় অফিস সহায়ককে ম্যাডাম বলায় প্রশিক্ষকের গালে থাপ্পড়

প্রতিবেদক:  Shomoy News 24    প্রকাশের সময়: 09/07/2019  9:07 PM

এস,কে জাহাঙ্গীর আলম, সময় নিউজ ২৪ ডটনেট, সাতক্ষীরা: সাতক্ষীরা সদরের মহিলা বিষয়ক কর্মকর্তা নাজমুন নাহারের বিরুদ্ধে আইজিএ প্রকল্পের কম্পিউটার প্রশিক্ষক আল-আমিন রহমানের গালে থাপ্পড় মারার অভিযোগ উঠেছে। এবিষয়ে সুবিচার চেয়ে আল-আমিন জেলা প্রশাসক বরাবর লিখিত অভিযোগ দায়ের করেছে। লিখিত অভিযোগ সূত্রে জানাজায়,গত বুধবার (৩ জুলাই ) বেলা ১১ টার দিকে ওই অফিসে কর্মরত ৩য় ব্যাচের প্রশিক্ষণার্থীদের বিদায় অনুষ্ঠানের আয়োজন করা হয়। এসময় মোবাইল ফোনে আল-আমিন ওই অফিসের কম্পিউটার অপারেটর রাজিয়া সুলতানাকে ম্যাডাম বলে সম্বোধন করায় ক্ষেপে যান নাজমুন নাহার। তার ক্ষিপ্ততা এতই প্রবল ছিল অনুষ্ঠানে উপস্থিত সবার সামনে গালে থাপ্পড় মারে আল-আমিনকে এবং উচ্চস্বরে বলতে থাকে অফিসে একমাত্র ম্যাডাম নাজমুন নাহার আর কোন ম্যাডাম নেই। ঘটনা স্থলে উপস্থিত সকলে তার এমন আচরণে হতভম্ব হয়ে যায়।

এসকল বিষয়ে জানতে চাইলে আল-আমিন বলেন, রাজিয়া সুলতানাকে ম্যাডাম বলে সম্বোধন করায় তার গালে চর মেরেছে মহিলা বিষয়ক কর্মকর্তা নাজমুন নাহার। এজন্য সে সুবিচার চেয়ে গত বৃহস্পতিবার(৪ জুলাই) জেলা প্রশাসক বরাবর লিখিত অভিযোগ দিয়েছেন।
কম্পিউটার প্রশিক্ষক আল-আমিনের গালে থাপ্পড়ের কথা স্বীকার করে সাতক্ষীরা সদর উপজেলা মহিলা বিষয়ক কর্মকর্তা নাজমুন নাহার বলেন, মোবাইলে কথা বলার সময় কয়েকবার রাজিয়াকে ম্যাডাম না ডেকে আফা বলে সম্বোধন করতে  বলে ছিলেন। কিন্তু আল-আমিন তার কথা না শুনায় সে রেগে যেয়ে তাকে  থাপ্পড় মারে। তবে পরবর্তীতে সে সকলের সামনে দুঃখ প্রকাশ করে ছিলেন বলে জানান।
এবিষয়ে সাতক্ষীরা জেলা প্রশাসক এস এম মোস্তফা কামাল বলেন,লিখিত অভিযোগের প্রেক্ষিতে মহিলা বিষয়ক কর্মকর্তাকে জনসম্মুখে চড় মারার কারণ লিখিত ভাবে ব্যাখ্যা করতে বলা হয়েছে ।
Site Develop by : Shekh Mostafizur Rahman Faysal